শাহজাদপুরে দুইজনের মৃত্যু


সিরাজগঞ্জ জেলায় পৃথক বজ্রপাতে ৫জন নিহত

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর,উল্লাপাড়া ও বেলকুচি উপজেলায় রবিবার বিকেল পৌনে ৫টার দিকে পৃথক বজ্রপাতে ৫ জন নিহত হয়েছে। নিহতরা হলেন,শাহজাদপুর উপজেলার কায়েমপুর ইউনিয়নের চর আঙ্গারু গ্রামের আমানত মোল্লার ছেলে মো: আব্দুল্লাহ ওরফে জুয়েল রানা (২৬), নরিনা ইউনিয়নের বাতিয়া গ্রামের মৃত জালাল উদ্দিন ভোলার ছেলে আলহাজ আলী বাবুর্চি (৬০), উল্লাপাড়া উপজেলার উধুনিয়া ইউনিয়নের আগদিঘল গ্রামের শাহেদ আলীর ছেলে ফরিদুল ইসলাম (১৬), সলঙ্গা ইউনিয়নের আঙ্গারু গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে রফিকুল ইসলাম (৪৫) ও বেলকুচি উপজেলার রাজাপুর ইউনিয়নের চর সমেষপুর গ্রামের লাইলি বেগম(৪৫)।

এ বিষয়ে শাহজাদপুর উপজেলার কায়েমপুর ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ড সদস্য আবুল কালাম জানান, এ দিন বিকেলে বাড়ির পাশের জমিতে ধান কাটার সময় জুয়েল রানা বজ্রপাতে নিহত হয়।

এ বিষয়ে নরিনা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ফজলুল হক ও এলাকাবাসি আলতাফ হোসেন জানান, আলহাজ তার স্ত্রীকে সাথে নিয়ে বাড়ির পাশের মাঠে ধান শুকানোর কাজ করছিলেন। এ সময় ঝড়-বৃষ্টি শুরু হলে তারা দৌড়ে বাড়ির কাছে আসলে হঠাৎ বজ্রপাতে আলহাজ বাবুর্চি ঘটনাস্থলেই নিহত হয়।

এ বিষয়ে উল্লাপাড়া উপজেলার উধুনিয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আব্দুল জলিল প্রামানিক জানান, আগদিঘল গ্রামের মাঠে ধান কাটার সময় নবম শ্রেণির ছাত্র ফরিদুল ইসলাম বজ্রপাতে নিহত হয়।

এ বিষয়ে সলঙ্গা থানার ওসি আব্দুল কাদের জিলানী বলেন,উল্লাপাড়া উপজেলার বাঙ্গালা ইউনিয়নের ধরইল বিলে হাঁস পালনের সময় রফিকুল ইসলাম (৪৫) নামের এক রাখাল বজ্রপাতে নিহত হয়। তিনি উল্লাপাড়া উপজেলার সলঙ্গা ইউনিয়নের আঙ্গারু গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে।

এ বিষয়ে বেলকুচি থানার ওসি গোলাম মোস্তফা জানান, বেলকুচি উপজেলার রাজাপুর ইউনিয়নের চর সমেষপুর গ্রামের লাইলি বেগম মাঠে কাজ করার সময় বজ্রপাতে নিহত হন। এ সব ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

সলঙ্গায় অজ্ঞাত যুবকের লাশ উদ্ধার

হাত-পা ও চোখ বাঁধা লাশ উদ্ধার করে থানা পুলিশ

বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম মহাসড়কের সিরাজগঞ্জের সলঙ্গায় অজ্ঞাত যুবকের (৩৬) হাত-পা ও চোখ বাঁধা লাশ উদ্ধার করে থানা পুলিশ।

গককাল রবিবার (২মে) বিকাল সাড়ে ৩ টার দিকে নলকা হোড়গাঁতী এলাকায় ফুলজোর ডিগ্রী কলেজের পশ্চিম পাশ থেকে এ লাশ উদ্ধার করা হয়।

স্থানীয় হেলাল উদ্দিন নামে এক স্কুল ছাত্র বলেন, একটি সাদা মাইক্রোবাস মহাসড়কের পাশে এসে মরদেহটি ফেলে রেখে হাটিকুমরুল গোলচত্বেরর দিকে চলে যায়। পরে হাত-পা-চোখ বাঁধা লাশ দেখে আমি ৯৯৯ ফোন করে বিষয়টা জানাই।

সলঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুল কাদের জিলানী সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, ৯৯৯ ফোন পেয়ে আমরা ঘটনা স্থলে আসি অজ্ঞাত হাত-পা ও চোখ বাঁধা লাশটি উদ্ধার করি। তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে নির্যাতন


সলঙ্গায় ৯৯৯ নম্বরে কল করায় রক্ষা পেলেন স্ত্রী

সিরাজগঞ্জের সলঙ্গা থানার এরান্দহ গ্রামে যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে নির্যাতনের সময় ৯৯৯-এ কল করায় গৃহবধূকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। সে ওই গ্রামের স্কুল শিক্ষক ইমরান আল কায়েসের স্ত্রী। এ ঘটনায় স্বামীসহ জড়িতদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

এ বিষয়ে সলংগা থানার ওসি আব্দুল কাদের জিলানী এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি আলোকিত বাংলাদেশকে জানান, প্রায় ১৫ বছর আগে ওই স্কুল শিক্ষক পার্শ্ববর্তী গ্রামপাঙ্গাসী গ্রামের মৃত হায়দার আলীর মেয়ে শাপলা খাতুনকে (৩১) বিয়ে হয়। বর্তমানে তাদের ঘরে দুইকন্যা সন্তানও রয়েছে। স্থানীয় সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে চাকরি করে এবং অন্য এক স্কুল শিক্ষিকার সাথে পরকীয়া প্রেমে জড়িয়ে পড়ে। আর এ পরকীয়া প্রেমে বাধা দিলে স্ত্রীকে বিভিন্ন অজুহাতে নির্যাতনসহ যৌতুকের ৫ লাখ টাকা দাবি করে। দাবিকৃত এ যৌতুকের না দিলে তাকে তালাক দেয়ার হুমকি দেয়া হয়। এরই জের ধরে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার দিকে স্বামীসহ পরিবারের লোকজন তাকে মারপিট করে হত্যার চেষ্টা করে।

এ সময় ৯৯৯ এ কল করায় পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে তাকে উদ্ধার করে চিকিৎসা ব্যবস্থা করা হয়। এ ব্যাপারে গতকাল শুক্রবার রাতে ওই গৃহবধূ বাদী হয়ে স্বামীসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট থানায় মামলা দায়ের করেন।

সলঙ্গায় ২ নারীসহ ৪ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

সিরাজগঞ্জ জেলার সলঙ্গা থানা এলাকায় এক মাদক বিরোধী বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে ৮১ পিস ইয়াবা ট্যাবলেটসহ মোছাঃ সানজিদা খাতুন(২২), মোঃ শাহাদত ইসলাম খায়রুল(১৯), মোঃ রাজু অহম্মেদ(২২) এবং মোছাঃ জেসমিন খাতুন(৩০) নামের চারজন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার করেছে স্পেশাল কোম্পানী, র‌্যাব-১২ এর সদস্যগন।

এ সময় তাদের নিকট হইতে ৮১ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট, ০৩ টি মোবাইলসেট, ০৬ টি সিমকার্ড উদ্ধার করা হয়।

শনিবার সকালে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বিষয়টি নিশ্চিত করেছে স্পেশাল কোম্পানী কমান্ডার এএসপি মহিউদ্দিন মিরাজ।

প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে গত শুক্রবার (০২ অক্টোবর) ৭ টা ১০ মিনিটে লঙ্গা-নিমগাছী আঞ্চলিক সড়কের নতুন পাড়া সলঙ্গা গ্রামস্থ কবরস্থানের পূর্ব পাশে অভিযান পরিচালনা করে ইয়াবা ট্যাবলেটসহ তাদেরকে হাতেনাতে গ্রেফতার করা হয়।

পরবর্তীতে উদ্ধারকৃত আলামত ও গ্রেফতারকৃত আসামীদের বিরুদ্ধে সিরাজগঞ্জ জেলার সলঙ্গা থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা রুজু করা হয়েছে।

সলঙ্গায় এ্যাম্বুলেন্স খাদে পড়ে নিহত ১, আহত ৫

সিরাজগঞ্জের সলঙ্গায় এ্যাম্বুলেন্স নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খাদে পড়ে ওমর আলী (৬০) নামে এক এক পাটকল শ্রমিক নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় এ্যাম্বুলেন্সের আরো ৫ যাত্রী আহত হন। শুক্রবার (৩ জুলাই) দুপুরে বগুড়া-নগরবাড়ী মহাসড়কের সলঙ্গা থানার ঘুড়কা বাজার এলাকায় এ দূর্ঘটনা ঘটে।

নিহত ওমর আলী বগুড়ার আফরিন জুট মিলের শ্রমিক ও জামালপুরের সরিষাবাড়ী উপজেলার মনার পাড়া গ্রামের বাসিন্দা। ফায়ার সার্ভিস হাটিকুমরুল হাইওয়ে থানা, সলঙ্গা থানা পুলিশ ও স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে স্থানীয় ক্লিনিকে ভর্তি করে দেয়।

এ্যাম্বুলেন্সে থাকা বগুড়া আফরিন জুট মিলের ঠিকাদার সোহেল রানা এবং রায়গঞ্জ ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের সহকারী পরিচালক সেরাজুল ইসলাম জানান, বগুড়া থেকে আমরা জামালপুরের সরিষাবাড়িতে যাচ্ছিলাম। বগুড়া থেকে একটি এ্যাম্বুলেন্স ভাড়া করেন বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিমপাড় পর্যন্ত। পরে ঘটনাস্থলে পৌঁছলে এ্যাম্বুলেন্স নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খাদে পড়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই এক জন নিহত ও ৫ জন আহত হয়।

পরে হতাহত ও দুর্ঘটনা কবলিত এ্যাম্বুলেন্স উদ্ধার করা হয়।

উল্লাপাড়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় দুই শ্রমিক নিহত

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় পাথরবোঝাই একটি ট্রাককে পেছন থেকে ধাক্কা দিয়ে ইটবোঝাই ট্রাকের দুই শ্রমিক নিহত হয়েছেন। এই ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও দুইজন।নিহতরা হলেন- সলঙ্গা থানার রঘুনাথপুর গ্রামের দবির উদ্দিনের ছেলে কায়সার (২০) ও একই গ্রামের ইউনুছ আলীর ছেলে ছানোয়ার হোসেন (১৯)। আহতরা হলেন- একই এলাকার ইয়াকুব ও সানোয়ার। তাদের স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আজ বুধবার (২৪ জুন) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়কের উপজেলার পাঁচলিয়া এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

হাটিকুমরুল হাইওয়ে থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নুরন্নবী প্রধান এসব তথ্য নিশ্চিত করে জানান, সকালে উপজেলার পাঁচলিয়া এলাকায় চলন্ত পাথরবোঝাই একটি ট্রাককে পেছন থেকে ধাক্কা দেয় ইটবোঝাই আরেকটি ট্রাক। এতে ঘটনাস্থলেই ইটবোঝাই ট্রাকে থাকা দুই শ্রমিকের মৃত্যু হয়। আহত হন আরও দুই শ্রমিক।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে হতাহতদের উদ্ধার করে। দুর্ঘটনাকবলিত ট্রাক দুটিকে জব্দ করা হয়েছে। তবে চালক ও হেলপার পালিয়ে গেছেন।

সলঙ্গা থানার ওসির তিন মেয়েরও করোনাভাইরাস শনাক্ত

ফাইল ছবি (সিভিল সার্জন কার্যালয়, সিরাজগঞ্জ)

করোনাভাইরাস আক্রান্ত সিরাজগঞ্জের সলঙ্গা থানার ওসির তিন মেয়েরও এ ভাইরাস সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। ওই থানার দুই এসআই ও দুই কনস্টেবল আক্রান্ত হয়েছেন।

শনিবার দুপুরে এ তথ্য জানান সিভিল সার্জন কার্যালয়ের পরিসংখ্যান কর্মকর্তা হুমায়ুন কবির।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার এই থানার ওসি ও একজন এসআইয়ের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয় বলে তিনি জানান।

তিনি জানান, শহীদ এম মনসুর আলী মেডিকেল কলেজের পিসিআর ল্যাবে পরীক্ষার পর শনিবার ৯৩ জনের রিপোর্ট এসেছে। এর মধ্যে আট জনের নমুনায় করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। বাকি ৮৫ জনের রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে।

হুমায়ুন কবির আরও জানান, এ নিয়ে জেলায় মোট করোনাভাইরাস আক্রান্তের সংখ্যা হলো ১০৮; যার মধ্যে ৩২ জন পুলিশ সদস্য রয়েছেন। ইতোমধ্যে তিন পুলিশ সদস্য সুস্থ হয়ে কাজে যোগ দিয়েছেন।

সিরাজগঞ্জে পৃথক ঘটনায় এক দিনে ৬ জনের মৃত্যু

পবিত্র ঈদুল ফিতরের দ্বিতীয় দিনে সিরাজগঞ্জে নৌকাডুবিসহ তিনটি পৃথক ঘটনায় ৬ জনের মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। এসব ঘটনায় আহত ও নিখোঁজ হয়েছেন অন্তত ১৬ জন।

আজ মঙ্গলবার সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ার সলঙ্গায় অগ্নিদগ্ধ হয়ে, চৌহালীতে যমুনায় নৌকাডুবি ও শাহজাদপুর দু’পক্ষের সংঘর্ষে এসব হতাহতের ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন— শাহজাদপুর উপজেলার গুটিবাড়ী গ্রামের আব্দুল মান্নানের ছেলে রিপন (২৮) ও আনছার মোল্লার ছেলে আশরাফুল (১৬), উল্লাপাড়া উপজেলার সলঙ্গা থানাধীন ওলিদহ গ্রামের আলতাফ হোসেন নূরীর স্ত্রী সেলিনা বেগম (৫৫), বেলকুচি উপজেলার গয়নাকান্দি গ্রামের মৃত জহির ফকিরের ছেলে পাষান ফকির (৬৫), কলাগাছি গ্রামের শামীম হোসেনের ছেলে নাইমুল ইসলাম (৪), টাঙ্গাইল জেলার নাগরপুর উপজেলার সুবর্ণতলী গ্রামের ব্যবসায়ী মৃত মজিদ মোল্লার শেখ কামাল মোল্লা (৪৫)।

শাহজাদপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্ত (ওসি) মো. আতাউর রহমান জানান, পূর্ব শত্রুতার জের ধরে আজ সন্ধ্যার আগে উপজেলার গুটিবাড়ী গ্রামে বাহারাম গ্রুপ ও নাজির গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে উভয়পক্ষের অন্তত ১২ জন আহত হন। আহতদের মধ্যে সিরাজগঞ্জ ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে নেয়ার পথে রিপন ও আশরাফুলের মৃত্যু হয়। নিহতরা দুজনেই বাহারাম গ্রুপের সমর্থক। আহতের মধ্যে আবু সামা, আকতার হোসেন, বাহারাম আলী, গাজী, সাহেব আলী ও রাজুকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তাদের মধ্যে দুজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

এর আগে দুপুরে চৌহালী উপজেলার স্থলচর এলাকায় যাত্রীবোঝাই নৌকাডুবিতে এক শিশুসহ তিনজনের মৃত্যু ঘটেছে। এ ঘটনায় নিখোঁজ রয়েছেন ১৪ জন নৌযাত্রী।

এনায়েতপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোল্লা মাসুদ পারভেজ জানান, আজ দুপুরে এনায়েতপুর খেয়াঘাট থেকে ৭০ জন যাত্রী নিয়ে একটি ইঞ্জিন চালিত নৌকা চৌহালী যাচ্ছিল। নৌকাটি স্থলচর নামক এলাকায় পৌঁছলে প্রচণ্ড ঝড়ো বাতাসের কবলে পড়ে ডুবে যায়। খবর পেয়ে পুলিশ ও স্থানীয়রা অভিযান চালিয়ে ৫৪ জনকে জীবিত অবস্থায় এবং শিশু নাইমুল ও বৃদ্ধ পাষান আলীর মরদেহ উদ্ধার করে।

ওসি আরও জানান, এ ছাড়াও যমুনা নদীর ভাটিতে কুকুরিয়া এলাকা থেকে শেখ কামাল মোল্লা নামে আরও এক ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার করে স্থানীয়রা। এ নৌকাডুবির ঘটনায় ১৪ জন নিখোঁজ রয়েছে। সন্ধ্যা পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে নিখোঁজ ব্যক্তিদের মরদেহ উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।

চৌহালী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) দেওয়ান মওদুদ আহম্মেদ বলেন, ‘নিখোঁজ যাত্রীদের উদ্ধারে সকালে ঢাকা থেকে নৌ ডুবুরি দল আমাদের সাথে যুক্ত হবে। এ ঘটনায় হতাহতদের মানবিক সহায়তা প্রদান করা হবে।’

এদিকে সকালে সলঙ্গা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) হুমায়ুন কবির জানান, ওলিদহ গ্রামে আগুনে পুড়ে মারা গেছে উল্লেখ করে সেলিনা বেগম নামে নারীকে দাফন করা হয়। পরিবারের দাবি, বাড়িতে আত্মীয়-স্বজনদের জন্য গতকাল সোমবার গভীর রাত পর্যন্ত রান্না করেন সেলিনা। রান্না শেষের দিকে গ্যাসের চুলো থেকে তার পরনের কাপড়ে আগুন ধরে। তিনি সেটা টের না পেয়ে বিছানায় ঘুমোতে যান। ভোররাতে ওই আগুনে পুড়ে মারা যান সেলিনা। তবে এ মৃত্যুর বিষয়টি নিয়ে তদন্ত চলছে। তদন্তে কোনো তথ্য পাওয়া গেলে পরিবারের অভিযোগ না থাকলেও পুলিশ বাদী হয়ে মামলা দায়ের করবে।

সলঙ্গায় ২ ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ, হেলপার নিহত

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া উপজেলার সলঙ্গায় দুইটি পণ্যবাহী ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে অজ্ঞাতপরিচয় এক হেলপার (২০) নিহত হয়েছেন।

বুধবার (১৩ মে) সকালে হাটিকুমরুল-বনপাড়া মহাসড়কে সলঙ্গা থানার গোঁজা ব্রিজ এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

হাটিকুমরুল হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খাইরুল ইসলাম বলেন, উত্তরবঙ্গগামী একটি সয়াবিন তেলবাহী ট্রাক গোঁজা ব্রিজ এলাকায় পৌঁছালে কুষ্টিয়া থেকে আসা ধানের কুঁড়োবাহী ট্রাকের সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়।

এতে ঘটনাস্থলেই ধানের কুঁড়োবাহী ট্রাকের হেলপারের মৃত্যু হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস সদস্যরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে। দুর্ঘটনাকবলিত ট্রাক দু’টি জব্দ করে হেফাজতে রাখা হয়েছে।

টমেটোর পিকআপ ভ্যানে ফেনসিডিল, আটক ২

সিরাজগঞ্জের সলঙ্গা থানার হাটিকুমরুল গোলচত্বর এলাকায় অভিযান চালিয়ে টমেটো বোঝাই পিকআপ ভ্যান থেকে ৩৫৬ বোতল ফেনসিডিল জব্দ করেছে র‌্যাব -১২ সদস্যরা। এ ঘটনায় পিকআপ ভ্যানসহ চালক ও সহকারীকে আটক করা হয়েছে।

শনিবার (০৯ মে) দুপুরে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন র‌্যাব-১২ এর সিনিয়র সহকারী পরিচালক ও মিডিয়া কর্মকর্তা এম এম এইচ ইমরান।

আটকৃতরা হলেন- দিনাজপুর জেলার নবাবগঞ্জ উপজেলার প্রাণকৃষ্ণপুর চরার হাস এলাকার মৃত রুহুল আমিনের ছেলে ও পিকআপ ভ্যানের চালক সৈয়দ রেজাউল করিম (৫৫) ও একই উপজেলার আমবাগান এলাকার আশরাফ আলীর ছেলে রবিউল ইসলাম (৩০)।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এম এম এইচ ইমরান বলেন, দিনাজপুর থেকে ফেনসিডিলের একটি চালান ঢাকায় পাচার হচ্ছে এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শুক্রবার (০৮মে) রাতে ঢাকা-বগুড়া মহাসড়কে উল্লাপাড়া উপজেলার হাটিকুমরুল গোলচত্বর এলাকায় খান হোটেলের সামনে অস্থায়ী চেকপোস্ট বসানো হয়। এ সময় ঢাকাগামী টমেটো বোঝাই ওই পিকআপটিতে তল্লাশি চালিয়ে ৩৫৬ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় পিকআপ ভ্যানসহ এর চালক ও সহকারীকে আটক করা হয়। এ ঘটনায় সলঙ্গা থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।