জানমাল নিয়ে উদ্বিগ্ন এলাকাবাসী


শাহজাদপুরে ৯ দিনেও উদ্ধার হয়নি চুরি যাওয়া সাড়ে ৯ লাখ টাকার মালামাল

শাহজাদপুর উপজেলার পোরজনা ইউনিয়নের জোতপাড়া গ্রামের রফিকুল ইসলামের বাড়িতে সাড়ে ৯ লাখ টাকার মালামাল চুরির ঘটনায় পুলিশ ৩ চোরকে গ্রেফতার করলেও ৯ দিনেও উদ্ধার করতে পারেনি মালামাল।

জানা গেছে, গত ১৭ জুন রাতে উপজেলার পোরজনা ইউনিয়নের জোতপাড়া গ্রামের রফিকুল ইসলামের বাড়ির ঘুমন্ত সবাইকে অচেতন করে চোরের দল নগদ টাকা, স্বর্ণালঙ্কারসহ সাড়ে ৯ লাখ টাকার মালামাল চুরি করে। এ ঘটনায় রফিকুল ইসলাম বাদী হয়ে শাহজাদপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। এর প্রেক্ষিতে বৃহস্পতিবার থানা পুলিশ কৈজুরী ইউনিয়নের জগতলা গ্রামের ভোলা, সামছুল ও পলাশ নামের ৩ চোরকে গ্রেফতার করে। ধৃত ৩ চোর চুরি করার কথা স্বীকার করলেও এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত চুরি যাওয়া মালামাল উদ্ধার হয়নি।

এলাকাবাসী অভিযোগে জানায়, একই ভাবে ঘুমন্ত মানুষকে অচেতন করে সম্প্রতি বাসুরিয়ার শহিদ আলীর বাড়ি, জামিরতার জীবন সাহার বাড়ি ও জগতলার হাই ডাক্তারের বাড়িতে দুধর্ষ চুরির ঘটনা ঘটলেও এর কোন প্রতিকার হয়নি। এতে এলাকায় চুরি আতংক বিরাজ করছে ও এলাকাবাসী জানমালের নিরাপত্ত্বা নিয়ে চরম উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছে।

এ বিষয়ে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই শাহজাহান জানান, ‘ধৃত ৩ জন চুরির সাথে সম্পৃক্ততার কথা স্বীকার করেছে। বৃহস্পতিবার বিকেলে এদের জেল হাজাতে প্রেরণ করা হয়েছে ও বিজ্ঞ আদালতে রিমান্ডের আবেদন করা হয়েছে।’

অপরদিকে, শাহজাদপুর থানার অফিসার ইনচার্জ আতাউর রহমান বলেন, ‘চুরির মালামাল উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।’