মায়ের ওপর অভিমানের জের


শাহজাদপুরে ৪র্থ শ্রেণির স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা

আল আমিন হোসেন, শাহজাদপুর :  সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলার কৈজুরী ইউনিয়নের পাথালিয়া পাড়া গ্রামে মায়ের ওপর অভিমান করে অন্তরা খাতুন (১১) নামের এক স্কুলছাত্রী গলায় ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করেছে।
নিহত অন্তরা খাতুন পাথালিয়া পাড়া গ্রামের কাঁচামাল ব্যাবসায়ী মোঃ আমিরুল ইসলামের মেয়ে ও স্থানীয় মাকড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রী।
জানা যায়, মঙ্গলবার দুপুরে শাহজাদপুর উপজেলার কৈজুরী ইউনিয়নের পাথালিয়া পাড়া গ্রামের কাঁচামাল ব্যাবসায়ী মোঃ আমিরুল ইসলামের মেয়ে অন্তরা খাতুন কে বাবার ভাত নিয়ে দোকানে  যেতে বলে তার মা। অন্তরা খাতুন ভাত নিয়ে যেতে গরিমসি করে, এতে অন্তরার মা তাকে গালাগালি করে। অন্তরা অভিমান করে তার চাচার ঘরে গিয়ে দরজা বন্ধ করে দেয়। পরে বিকাল পর্যন্ত অন্তরার কোন সারাশব্দ না পেয়ে তার মা জানালা দিয়ে অন্তরার দেহ ঘরের ডাফের সাথে ওড়না পেঁচিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পায়। পরে বাড়ির লোকজন দরজা ভেঙে অন্তরার ঝুলন্ত দেহ নামায়। পরে তাকে অচেতন অবস্থায় স্থানীয় চিকিৎসকের কাছে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে।
পরে খবর পেয়ে রাত আনুমানিক ১১টায় শাহজাদপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ফজলে আশিকের নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। আজ বুধবার বাদ ফজর অন্তরার লাশ জানাযা শেষে স্থানীয় কবরস্থানে দাফন করা হয়।
শাহজাদপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মোঃ ফজলে আশিক জানান, আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে জিজ্ঞাসাবাদে আত্মহত্যার বিষয়টি নিশ্চিত হ‌ই। আমরা আরোও জানতে পারি মৃত অন্তরা খাতুন মানসিক অসুস্থ ছিল।