ওয়ার্ডবাসীর সেবক হিসেবে আত্মনিয়োগ: সকলের দোয়া,ভালোবাসা ও সহযোগী কামনা


শাহজাদপুরের ২নং ওয়ার্ডকে মডেল ওয়ার্ডে রূপান্তরিত করতে চান কাউন্সিলর পদপ্রার্থী তৌহিদুর রহমান এ্যাপোলো

আগামী ২৮ ডিসেম্বরে শাহজাদপুর পৌরসভা নির্বাচনে ২ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদপ্রার্থী, শাহজাদপুরের মাটি ও মানুষের নেতা স্থানীয় এমপি বীরমুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব হাসিবুর রহমান স্বপনের ভাতিজা, উচ্চশিক্ষিত, সৎ, যোগ্য প্রার্থী মোঃ তৌহিদুর রহমান এ্যাপোলো কাউন্সিলর নির্বাচিত হলে শাহজাদপুর পৌর এলাকার ২ নং ওয়ার্ডকে একটি মডেল ওয়ার্ডে রূপ দেয়ার পাশাপাশি ২নং ওয়ার্ডের সার্বিক উন্নয়ন ও ওয়ার্ডবাসী কল্যাণে আত্মনিয়োগ করে কাঙ্খিত পৌরসেবা নিশ্চিতের আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন। বৃহস্পতিবার ( ১০ ডিসেম্বর ) দুপুরে একান্ত এক সাক্ষাতকারে তিনি এ আশাবাদ ব্যক্ত করেন। গত কয়েকদিন ধরে তিনি শাহজাদপুর পৌর এলাকার ২ নং ওয়ার্ডের ভোটারদের সাথে মতবিনিময় করে ভোট ও দোয়া চাইছেন। শাহজাদপুর পৌর এলাকার গুরুত্বপূর্ণ এলাকা রূপপুর, চুনিয়াখালী পাড়া, পাঠান পাড়া, চড়–য়াপাড়া ও ভেরুয়াদহ নিয়ে শাহজাদপুর পৌরসভার ২ নং ওয়ার্ড গঠিত। আগামী ২৮ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিতব্য ২ নং ওয়ার্ডের নির্বাচনে শাহজাদপুর পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ে ২টি ও শাহজাদপুর ইব্রাহিম প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ১টিসহ মোট ৩টি ভোট কেন্দ্রে ৫ হাজার ৮’শ ১ জন ভোটারের ভোটাধিকার প্রয়োগের কথা রয়েছে।

জানা গেছে, শাহজাদপুর পৌর এলাকার পাঠানপাড়া মহল্লার হাজী মরহুম হাফিজুর রহমান লালের বড় ছেলে ২ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদপ্রার্থী মোঃ তৌহিদুর রহমান এ্যাপোলা জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পলিটিক্যাল সাইন্সে কৃতীত্বের সাথে উচ্চ শিক্ষা শেষ করেন। পরে দীর্ঘ ২৬ বছর তিনি বাইং হাউজসহ ঢাকার বিভিন্ন স্বনামধন্য প্রতিষ্ঠানের উর্ধতন কর্মকর্তা হিসেবে সততা ও দক্ষতার সাথে চাকরী করেন। চাচা স্থানীয় এমপি বীরমুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব হাসিবুর রহমানর স্বপনের সুদীর্ঘ কর্মজীবনে দেশ ও দশের কল্যাণে কাজ করার বিষয়ে অণুপ্রাণিত হয়ে এবং বিশেষতঃ ‘অপরের হিতসাধনই মানব জীবনের প্রধান ধর্ম’- এ কথাটি মর্মে মর্মে উপলব্দি করে সততা ও নিষ্ঠার সাথে জনসেবায় আত্মনিয়োগের প্রথম ধাপ হিসেবে তিনি ২ নং ওয়ার্ড থেকে কাউন্সিলর পদে নির্বাচনের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে জানা গেছে।

এ বিষয়ে ২ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদপ্রার্থী তৌহিদুর রহমান এ্যাপোলা এ প্রতিবেদককে বলেন, ‘ তিনি নির্বাচিত হলে ২নং ওয়ার্ডবাসীর নাগরিক সুবিধা নিশ্চিত, রাস্তাঘাট, মসজিদ, মাদরাসা, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, বিভিন্ন রাজনৈতিক, অরাজনৈতিক ও শ্বায়ত্বশাষিত প্রতিষ্ঠানের ভৌত ও অবকাঠামোগত উন্নয়ন, এলাকার গরীব- দুঃখী মানুষের ভাগ্যোন্নয়ন এবং ওয়ার্ডবাসীর কল্যাণে সেবক হিসেবে কাজ করে যাবেন। সেইসাথে, এলাকা থেকে সন্ত্রাস, মাদক, বাল্যবিয়েসহ নানা সামাজিক সমস্যা, কুসংস্কার, অপসংস্কৃতি দূর করে ২ নং ওয়ার্ডকে পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ডের মধ্যে একটি মডেল ওয়ার্ডে রূপ দেবেন। এ জন্য তিনি ওয়ার্ডবাসীসহ সকলের দোয়া-ভালোবাসা, সমর্থন ও সহযোগীতা কামনা করেছেন।