অপপ্রচারের প্রতিবাদে


শাহজাদপুরের বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আল মামুন রানার সংবাদ সম্মেলন

আবুল কাশেম, শাহজাদপুর (সিরাজগঞ্জ): শাহজাদপুর পৌর এলাকার ইসলামপুর (রামবাড়ী) মহল্লার বিশিষ্ট পরিবহন ব্যবসায়ী মোঃ আল মামুন রানা একাধিক গণমাধ্যমে তার বিরুদ্ধে মিথ্যা, ভিত্তিহীন ও বিভ্রান্তিকর সংবাদ প্রচার করানোর প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন করেছেন। আজ শনিবার (৫ সেপ্টেম্বর) সকাল ১০টায় শাহজাদপুর প্রেস ক্লাবে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে ব্যবসায়ী আল মামুন রানা জানান, পৌর এলাকার খঞ্জনদিয়ার মহল্লার একটি সম্পত্তির মালিকানা নিয়ে তার মামা শেখ মোঃ শাহাজাদা গং এবং খালাতো ভাই এনামুল হক গংদের মধ্যে বিবাদ চলে আসছে। বিষয়টি নিয়ে উভয় পক্ষই পূর্বেই আদালতে মামলা দায়ের করেছেন, যা বর্তমানে বিচারাধীন রয়েছে। মামলা চলাবস্থায় আমার খালাতো ভাই এনামুল হক গং আমার শরণাপন্ন হলে আমি উভয় পক্ষকে ডেকে নিয়ে বিষয়টি মিমাংসার চেষ্টা করি। সে চেষ্টা ব্যর্থ হলে এনামুল হক গং আমার শ্বশুর স্থানীয় এমপি আলহাজ্ব হাসিবুর রহমান স্বপনের ঢাকার বাসায় যান। এমপি মহোদয় বিষয়টি অবগত হয়ে আদালতের আদেশ মোতাবেক প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়ার জন্য শাহজাদপুর থানাকে নির্দেশ দেন। অপরদিকে, উভয় পক্ষই আমার নিকট আত্মীয় হওয়ায় এবং উভয় পক্ষের দায়ের করা মামলা আদালতে বিচারাধীন রয়েছে এই বিবেচনায় আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হয়ে আমি নিজেকেও নিরপেক্ষ রাখি। তাছাড়াও দায়ের করা মামলায় আমি কোন পক্ষও নই। কিন্তু এনামুল গং আমাকে মিথ্যা দোষারোপ করলেও আমি উভয় পক্ষকে আদালতের মাধ্যমে বিষয়টি মিমাংসা করে নেয়ার পরামর্শ দিয়েছি। লিখিত বক্তব্যে আল মামুন রানা আরো জানান, স্থানীয় এমপি‘র জামাতার পরিচয় দিয়ে বা প্রভাব খাটিয়ে আমি কখনও কারো পক্ষে কোন তদবির করি নাই। অথচ এনামুল হক গং ষড়যন্ত্রমূলক ও উদ্দেশ্য প্রনোদিতভাবে আমাকে সন্ত্রাসী ও চাঁদাবাজ উল্লেখ করে একাধিক গণমাধ্যমে নানা বিভ্রান্তিকর, মিথ্যা ও বানোয়াট তথ্য দিয়ে সংবাদ প্রচার করিয়ে আমাকে সামাজিকভাবে হেয় প্রতিপন্ন করছে ছাড়াও আমার ব্যবসায়ীক সুনাম নষ্ট করার অপচেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে। আমি অদ্যকার সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এনামুল হক গংদের এরূপ হীনচক্রান্তের তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি এবং উপস্থিত সাংবাদিকদের প্রকৃত ঘটনা প্রকাশ ও প্রচার করার জন্য বিনীত অনুরোধ জানাচ্ছি। এ ব্যাপারে এনামুল হকের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, আদালতের নিষেধাজ্ঞা থাকা সত্বেও আল মামুন রানা তার মামা শেখ মোঃ শাহাজাদা গংদের পক্ষে কাজ করছে। অন্যদিকে শেখ মোঃ শাহাজাদা জানান, নালিশী জমি আমার পৈতৃক সম্পত্তি। এ নিয়ে আদালতে মামলা বিচারাধীন রয়েছে। এ ব্যাপারে আমার ভাগ্নে আল মামুন রানা কোন পক্ষপাতিত্ব করে নাই। সংবাদ সম্মেলনে শাহজাদপুরে কর্মরত বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়া সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।