যুক্তরাষ্ট্রে নিহত জর্জ ফ্লয়েডের স্মরণসভায় মানুষের ঢল

পুলিশি নির্যাতনে কৃষ্ণাঙ্গ হত্যার সুষ্ঠু বিচার দাবি, ট্রাম্পসহ প্রশাসনের কয়েক কর্মকর্তার বিরুদ্ধে মামলা। মাত্র আট মিনিট ৪৬ সেকেন্ডের পুলিশি বর্বরতায় প্রাণ হারান কৃষ্ণাঙ্গ জর্জ ফ্লয়েড। ঠিক আট মিনিট ৪৬ সেকেন্ড নীরবতা পালনের মধ্যে দিয়ে তাকে স্মরণ করেছে শোকস্তব্ধ পরিবার ও বিক্ষোভকারীরা। ফ্লয়েড ছাড়াও পুলিশের হাতে প্রাণ হারানো অন্য কৃষ্ণাঙ্গ হত্যার সুষ্ঠু বিচারের দাবি জানান তারা।

এদিকে বিক্ষোভকারীদের ওপর পুলিশের বল প্রয়োগের ঘটনায় প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পসহ প্রশাসনের কয়েক কর্মকর্তার বিরুদ্ধে মামলা করেছে, ব্ল্যাক লাইভস মুভমেন্ট এবং দ্যা আমেরিকান সিভিল লিবার্টিজ ইউনিয়ন নামে দুটি মানবাধিকার সংগঠন।  সোমবার হোয়াইট হাউজের কাছে লাফায়েত স্কয়ারে একটি চার্চে পায়ে হেটে যান ট্রাম্প।  এসময় বিক্ষোভকারীদের সরাতে স্মোক বম্ব, পেপার বলসহ নানাভাবে বল প্রয়োগ করে পুলিশ।

আন্দোলনের ১১তম দিনে শান্তিপূর্ণ রূপ নিয়েছে বিক্ষোভ।  কারফিউ তুলে নেয়া হয়েছে রাজধানী ওয়াশিংটন ডিসি, লস এঞ্জেলেস এবং সিয়াটল শহর থেকে।  তবে নিউইয়র্কসহ বেশ কয়েক জায়গায় আন্দোলনকারীদের ওপর পুলিশের সহিংসতা অব্যাহত রয়েছে।  এসব সহিংসতার ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে।

অন্যদিকে, মিনেসোটা, নিউইয়র্কসহ বেশ কয়েকটি অঙ্গরাজ্যের গভর্নর আন্দোলনকারীদের করোনা পরীক্ষা করানোর কথা বলেছেন।  নইলে করোনা পরিস্থিতি আরো ভয়াবহ হওয়ার শঙ্কা জানিয়েছেন তারা। এদিকে ফ্লয়েডকে স্মরণ করে ট্রাম্পের প্রকাশিত একটি ভিডিও সরিয়ে নিয়েছে টুইটার।

করোনার কারণে বর্ণবৈষম্যের বিরুদ্ধে বিক্ষোভের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে অস্ট্রেলিয়ার নিউ সাউথ ওয়েলসের সুপ্রিম কোর্ট।

এখানে মন্তব্য করুন

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.